কালুখালীর হাটগ্রাম ঘোষবাড়ী পূজামন্ডপে ৪দিন ব্যাপী শ্যামা মায়ের পূজা সমাপ্ত

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ১০:৫২ অপরাহ্ণ ,২৬ অক্টোবর, ২০১৪ | আপডেট: ১০:৫২ অপরাহ্ণ ,২৬ অক্টোবর, ২০১৪
পিকচার

মোক্তার হোসেন : রাজবাড়ীর কালুখালী উপজেলার বোয়ালিয়া ইউপির হাটগ্রাম ঘোষবাড়ী সার্বজনীন পূজা মন্দিরে ৪ দিন ব্যাপী আয়োজিত শ্রীশ্রী শ্যামা মায়ের পূজা শান্তিপূর্ণ পরিবেশে সমাপ্ত হয়েছে। ২৬ অক্টোবর রোববার সন্ধ্যায় স্থানীয় চন্দনা নদীতে সনাতন হিন্দু ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের সাথে প্রতিমা বিসর্জনের মধ্য দিয়ে পূজার ৪দিন ব্যাপী কর্মসূচি শেষ করা হয়েছে।

জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার মন্দিরে পর্যায়ক্রমে চন্ডি প্রবর্তন, শ্যামামায়ের আরাধনা, দেবীদ্বয়ের বেদীমূলে স্থাপনসহ রাতে শ্যামামায়ের পূজা শুরু করা হয়। বৃহস্পতিবার গভীর রাতে কালীমাতার সন্তুষ্টতে সনাতন হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকজনের মানৎকৃত ২৩টি পাঁঠা বলীদান করা হয়। পূজা উপলেক্ষ মন্দির প্রাঙ্গনে মেলা বসে।
বৃহস্পতিবার রাতে কালুখালী থানার ওসি মোঃ আজিজুর রহমানের নেতৃত্বে থানা পুলিশের একটিদল, বোয়ালিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ আব্দুর রহমান, পাংশা উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি সুব্রত কুমার দাস সাগর, সাধারণ সম্পাদক নির্মল কুমার কুন্ডু, সাংগঠনিক সম্পাদক সুনীল কুমার বিশ্বাস ও পাংশা পৌরসভা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি সুব্রত দে-সহ পাংশা ও কালুখালীর পূজা উদযাপন পরিষদের নেতৃবৃন্দ এবং স্থানীয় বিভিন্ন শ্রেনী পেশার ব্যক্তিগণ পূজামন্ডপ পরিদর্শন করে সংশ্লিষ্টদের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন। পূজা কমিটির নেতৃবৃন্দ অতিথিবৃন্দকে অভ্যর্থনা জানান। শুক্রবার সকালে ভক্তদের মাঝে মহাপ্রসাদ বিতরণ করা হয়। সর্বশেষ গতকাল রোববার সন্ধ্যায় চন্দনা নদীতে প্রতিমা বিসর্জনের মধ্য দিয়ে পূজার ৪দিন ব্যাপী কর্মসূচি ও মেলা সমাপ্ত হয়।

শান্তিপূর্ণ পরিবেশে শ্যামামায়ের পূজা সমাপ্তিতে পূজা কমিটির সভাপতি বাসুদেব কর্মকার ও সাধারণ সম্পাদক আসীষ কুমার প্রামানিক স্থানীয় প্রশাসনসহ সকলকে কৃতঙ্গতাসহ অভিনন্দন জানিয়েছেন।

 

 

আপডেট : রবিবার অক্টোবর ২৬,২০১৪/ ১০:৫০ পিএম/ আশিক

 


এই নিউজটি 1060 বার পড়া হয়েছে
[fbcomments"]