কালুখালীর মৃগীতে প্রতিপক্ষের হামলায় কলেজ শিক্ষক হাসপাতালে

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ১২:০৩ অপরাহ্ণ ,৮ নভেম্বর, ২০১৪ | আপডেট: ১২:০৩ অপরাহ্ণ ,৮ নভেম্বর, ২০১৪
পিকচার

মোক্তার হোসেন : কালুখালীর মৃগী শহীদ দিয়ানত ডিগ্রি কলেজের জিওলোজী বিভাগের শিক্ষক মনছুর আলী (৪০) সামাজিক দ্বন্দ্বে প্রতিপক্ষের হামলায় গুরুতর আহত হয়ে পাংশা হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। সে সাওরাইল ইউপির পাতুরিয়া গ্রামের কওছের আলী মন্ডলের ছেলে। গত ৬ নভেম্বর সন্ধ্যায় এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, কলেজ শিক্ষক মনছুর আলী বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা রাত সাড়ে ৬টার দিকে তার ভাতিজা আলমকে সাথে নিয়ে মৃগী বাজার থেকে বাড়িতে ফেরার পথে মৃগীবাজার সংলগ্ন চত্রানদীর ব্রিজের পশ্চিম পাশে পৌঁছামাত্র একই গ্রামের আব্দুল কাদের মন্ডলের ছেলে মনোয়ার হোসেন, আকবর মন্ডলের ছেলে দাউদ ও আবুল হোসেনের ছেলে আলমসহ ১৮/২০জনের একটি দল ধারালো অস্ত্র ও লাঠিসোটা নিয়ে কলেজ শিক্ষক মনছুর আলীর উপর হামলা চালায়। হামলায় তার মাথা ও বাম হাত জখম হয়। হামলাকারীদল মনছুর আলীর নিকটে থাকা নগদ ৬০ হাজার টাকা, স্বর্ণের ১টি আংটি, ঘড়ি ১টি ও ১টি মোবাইল ফোনসেট ছিনিয়ে নেয়। ঘটনার পরপরই আহত মনছুর আলীকে পাংশা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

পাংশা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন মনছুর আলী আরো জানান, সামাজিক দ্বন্দ্বের জের ধরে প্রতিপক্ষের লোকজন তার উপর অমানবিক হামলা চালিয়ে নগদ টাকাসহ উল্লেখিত জিনিসপত্র ছিনিয়ে নেয়। এ ঘটনায় গতকাল শুক্রবার রাতে কালুখালী থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছিল বলে আহত মনছুর আলীর ভাই আনছার আলী জানিয়েছেন।

 

 

আপডেট : শনিবার নভেম্বর ০৮,২০১৪/ ‌১২:০৩ পিএম/ আশিক

 

 


এই নিউজটি 1118 বার পড়া হয়েছে
[fbcomments"]