রাজবাড়ীতে বাংলাদেশ শিক্ষক-কর্মচারী ঐক্য পরিষদের স্মারকলিপি প্রদান

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ১:৩৫ অপরাহ্ণ ,২২ জানুয়ারি, ২০১৫ | আপডেট: ১:৩৮ অপরাহ্ণ ,২২ জানুয়ারি, ২০১৫
পিকচার

স্টাফ রিপোর্টার : বেসরকারী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পূর্বের ন্যায় স্বয়ংক্রিয়ভাবে সকলের সাথে একযোগে বেতন স্কেল কার্যকর করার দাবিতে আজ বৃহস্পতিবার সকালে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করেছে বাংলাদেশ শিক্ষক-কর্মচারী ঐক্য পরিষদ রাজবাড়ী জেলা শাখার সদস্যবৃন্দ।

বাংলাদেশ শিক্ষক-কর্মচারী ঐক্য পরিষদ রাজবাড়ী জেলা শাখার সভাপতি মীর মাহফুজা খাতুন মলি ও সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাকের নেতৃত্বে সকাল ১১টায় জেলা প্রশাসক মো.রফিকুল ইসলাম খানের কাছে এ স্মারকলিপি প্রদান করা হয়। এসময় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) সোনামনি চাকমা,অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট ড.সৈয়দা নওশীন পূর্ণিনী,জেলা শিক্ষা অফিসার সৈয়দ সিদ্দিকুর রহমান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

স্মারকলিপিতে দাবী করা হয়েছে দেশের প্রায় ২৭ হাজার এমপিও ভুক্ত বে-সরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের (স্কুল কলেজ ও মাদ্রাসা) প্রায় ৫ লক্ষাধিক শিক্ষক- কর্মচারী বৃন্দ ১৯৯৭, ২০০৫ ও ২০০৯ সালের প্রদত্ত ৫ম, ৬ষ্ট ও ৭ম বেতন কমিশনের সুপারিশ বাস্তবায়নের দিন থেকেই সকল সরকারী কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের সাথে সাথে একই দিনে স্বয়ংক্রিয় ভাবে জাতীয় বেতন স্কেল ভোগ করে আসছেন। সাম্প্রতিক সময় সরকার প্রদত্ত ২০% মহার্ঘ্য ভাতাও এমপিও ভুক্ত শিক্ষক কর্মচারীবৃন্দ ভোগ করে আসছেন। গত ২১ ডিসেম্বর ২০১৪ তারিখে অষ্টম বেতন কমিশন কর্তৃক দাখিলকৃত বে-সরকারী এমপিও ভুক্ত শিক্ষক কর্মচারীদের ক্ষেত্রে জাতীয় স্কেল ৬ মাস পরে কার্যকর করার সুপারিশ করা হয়েছে মর্মে বিভিন্ন পত্র পত্রিকার মাধ্যমে জানতে পাওয়া গেছে। এমনকি দু-একটি পত্রিকার মাধ্যমে আদৌ ৮ম পে-কমিশনের সুপারিশের ভিত্তিতে বে-সরকারি শিক্ষক কর্মচারীরা জাতীয় বেতন স্কেলে অন্তর্ভুক্ত হচ্ছে না মর্মে রিপোর্ট প্রকাশিত হয়েছে। এ নিয়ে শিক্ষক সমাজের মধ্যে চরম অসন্তোষ, ক্ষোভ, ও হতাশার সৃষ্টি হয়েছে। বে-সরকারী শিক্ষক কর্মচারীরা বিভিন্ন সভা-সমাবেশ, বিবৃতি ও মানব বন্ধন কর্মসূচীর মাধ্যমে এর তীব্র প্রতিবাদ করে আসছেন।

 

 

আপডেট : বৃহস্পতিবার জানুয়ারী ২২,২০১৫/ ০১:৩০ পিএম/ আশিক

 


এই নিউজটি 893 বার পড়া হয়েছে

Comments

comments