রাজবাড়ীতে শুরু হতে যাচ্ছে স্কুল ফিডিং কার্যক্রম

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ১:৫৬ অপরাহ্ণ ,২৯ এপ্রিল, ২০১৫ | আপডেট: ১:৫৬ অপরাহ্ণ ,২৯ এপ্রিল, ২০১৫
পিকচার

রাজবাড়ী নিউজ২৪.কম : নদী ভাঙ্গন ও দারিদ্র্যপীড়িত এলাকার ছাত্র-ছাত্রীদের স্কুলমুখী করতে জেলা প্রশাসক মোঃ রফিকুল ইসলাম খানের উদ্ভাবনীমূলক পরিকল্পনায় রাজবাড়ীতে শুরু হতে যাচ্ছে স্কুল ফিডিং কার্যক্রম। আগামী ৯মে শহরের গোদারবাজার মডেল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে কর্মসূচির যাত্রা শুরু হবে।

রাজবাড়ী জেলায় স্কুল ফিডিং কার্যক্রম শুরু করার লক্ষে গতকাল ২৮ এপ্রিল দুপুরে সময় জেলা প্রশাসকের সম্মেলনকক্ষে এক সভা অনুষ্ঠিত হয়। জেলা প্রশাসক জনাব মোঃ রফিকুল ইসলাম খানের সভাপতিত্বে সভায় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) জনাব মোঃ ঈদতাজুল ইসলাম, সিভিল সার্জন ডাঃ মাহবুবুল হক,সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ্যাড: এম.এ খালেক, উপজেলা নির্বাহী অফিসার দেওয়ান মাহবুবুর রহমান, জেলা শিক্ষা অফিসার সৈয়দ সিদ্দিকুর রহমান, জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ তৌহিদুল ইসলাম, গোদারবাজার মডেল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি এম.এ মমিন খান এবং প্রধান শিক্ষক দোলেনা সুলতানাসহ সংশ্লিষ্ট সকলে উপস্থিত ছিলেন।

সভাপতির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক মোঃ রফিকুল ইসলাম খান বলেন, নদীভাঙ্গন কবলিত এলাকার দরিদ্র জনসাধারণের ছেলে-মেয়েছের স্কুলগামী করা এবং শিক্ষা ক্ষেত্রে ঝরে পড়ার প্রবণতা হ্রাস করার জন্য রাজবাড়ী জেলা প্রশাসন এ জেলায় স্কুল ফিডিং কার্যক্রম বাসত্মবায়নের উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। তিনি আরও বলেন, স্থানীয় দানশীল ব্যক্তিদের আর্থিক সহায়তায় এ কার্যক্রমের প্রাথমিক পর্যায়ে পাইলট প্রকল্প হিসেবে রাজবাড়ী পৌর এলাকার মধ্যে অবস্থিত পদ্মানদীর তীরবর্তী গোদারবাজার মডেল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়কে বেছে নিয়ে পর্যায়ক্রমে অন্যান্য বিদ্যালয়গুলোতে এ প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হবে।

রাজবাড়ী সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এ্যাড: এম.এ খালেক বলেন, রাজবাড়ীর বর্তমান জেলা প্রশাসক মোঃ রফিকুল ইসলাম খান এর জনসেবাধর্মী উদ্ভাবনীমূলক পরিকল্পনায় গৃহীত এ পদক্ষেপ অত্যন্ত সময়োপযোগী এবং প্রশংসার দাবী রাখে। নদী ভাঙ্গন ও দারিদ্র্যপীড়িত এলাকার জনসাধারণের ছেলে-মেয়েদের শিক্ষা নিশ্চিত করার ক্ষেত্রে স্কুল ফিডিং কার্যক্রমের আওতায় এনে পুষ্টির চাহিদা পূরণ এবং শিক্ষার মান উন্নয়ন সম্ভব। এ মহতী উদ্যোগে তিনি রাজবাড়ী উপজেলা পরিষদের পক্ষ থেকে সর্বাত্মক সহযোগীতার আশ্বাস প্রদান করেন।

সভায় উপস্থিত জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ তৌহিদুল ইসলাম জেলা প্রশাসনের এ উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়ে বলেন, স্কুল ফিডিং কার্যক্রম গ্রহণ করা হলে বিদ্যালয়ে ছাত্র-ছাত্রীদের উপস্থিতি আশানুরূপভাবে বেড়ে যাবে। তিনি জেলার অন্যান্য চারটি উপজেলাতেও অনুরূপ কর্মসূচি গ্রহণের জন্য সভাপতির দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।

সভায় উপস্থিত রাজবাড়ীর সিভিল সার্জন ডাঃ মাহবুবুল হক বলেন, এ কার্যক্রমের ফলে হতদরিদ্রদের সমত্মানদের পুষ্টির চাহিদা পূরণ করে লেখাপড়ায় তাদের অধিক মনোযোগী করে তুলবে।

 


এই নিউজটি 737 বার পড়া হয়েছে

Comments

comments