রাজবাড়ীতে পরকীয়া প্রেমের টানে এক সন্তানের জননীর অজানায় পাড়ি : আদালতে মামলা

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ৬:০৭ অপরাহ্ণ ,২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৫ | আপডেট: ৬:০৭ অপরাহ্ণ ,২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৫
পিকচার

স্টাফ রিপোর্টার : পরকীয়া প্রেমের টানে প্রেমিকের হাত ধরে অজানায় পাড়ি জমিয়েছে রাজবাড়ী সদর উপজেলার দয়ালনগর গ্রামের গৃহবধূ এক সন্তানের জননী কেয়া বেগম (৩০)। কিন্তু পরকীয়া প্রেমকে মানতে নারাজ তার স্বামী মোঃ জয়েন সরদার (৫০)। আর তাই স্ত্রীকে ফুসলিয়ে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগে কেয়া বেগমের পরকীয়া প্রেমিক মিন্টু সরদার (৩৫) এর বিরুদ্ধে রাজবাড়ীর বিজ্ঞ ১নং আমলী আদালতে মামলা করেছে সে।

মামলায় উল্লেখ করা হয়েছে, রাজবাড়ী সদর উপজেলার দয়ালনগর মৃত মানিক সরদারের ছেলে মোঃ জয়েন সরদার ১০ বছর আগে তার প্রথম স্ত্রী মারা যাওয়ার পর কেয়া বেগমকে বিয়ে করেন। তাদের ৭বছর বয়সী একটি পুত্র সন্তান রয়েছে। চর নারায়নপুর গ্রামের মোঃ তাহের সরদারের ছেলে মিন্টু সরদার জয়েন সরদারের আত্মীয় হওয়ার সুবাদে প্রায়ই তার বাড়ীতে যাতায়াত করতো। জয়েন সরদার ব্যবসায়ীক কাজে বেশীর ভাগ সময় বাইরে থাকার সুযোগে মিন্টু সরদার জয়েন সরদারের স্ত্রী কেয়া বেগমের সাথে গল্প-গুজব করতো এবং প্রায়ই তাকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে কু-প্রস্তাব দিতো। গত ১৮ই সেপ্টেম্বর রাত আনুমানিক ৯টার দিকে মিন্টু সরদার জয়েন সরদারের বাড়ীতে গিয়ে তার স্ত্রী কেয়া বেগমকে ফুসলিয়ে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে গোপন জায়গায় নিয়ে যায়। এরপর জয়েন সরদার বিভিন্ন স্থানে তার স্ত্রী কেয়া বেগমকে খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে গত ২২ শে সেপ্টেম্বর রাজবাড়ীর বিজ্ঞ ১নং আমলী আদালতে দঃবিঃ ৪৯৭/৪৯৮ ধ