রাজবাড়ী পৌর নির্বাচনে সংরক্ষিত মহিলা আসনে কাউন্সিলর পদে নির্বাচন করবেন ফারজানা ডেইজি

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ৮:১০ অপরাহ্ণ ,১৭ নভেম্বর, ২০১৫ | আপডেট: ৮:১৩ অপরাহ্ণ ,১৭ নভেম্বর, ২০১৫
পিকচার

স্টাফ রিপোর্টার : আসন্ন রাজবাড়ী পৌরসভা নির্বাচনে ১, ২ ও ৩নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত মহিলা আসন থেকে কাউন্সিলর পদে নির্বাচন প্রতিদ্বন্দ্বীতার জন্য মাঠে নেমেছেন জেলা যুবদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক প্রয়াত শামসুল আলম বাবলু’র স্ত্রী ফারজানা ইয়াসমিন ডেইজি। নির্বাচন করার জন্য ইতিমধ্যে জেলা বিএনপির শীর্ষ নেতৃবৃন্দের কাছ থেকে গ্রীন সিগন্যাল পেয়েছেন বলে জানিয়েছেন ডেইজি ।

ফারজানা ইয়াসমিন ডেইজি রাজবাড়ী শহরের বিনোদপুর ২নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা। কর্মময় জীবনে তিনি একজন গৃহিনী। ২০১২ সালের ২৩শে আগস্ট দিনগত রাত সাড়ে ১২টায় সন্ত্রাসীদের গুলিতে তার স্বামী জেলা যুবদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শামসুল আলম বাবলু নিহত হওয়ার পর এক ছেলে ও এক মেয়ে নিয়ে অনেকটাই অসহায় হয়ে পড়েন তিনি। স্বামীর মৃত্যুর শোক কাটিয়ে নিজেকে ঘুরে দাঁড়ানোর চেস্টায় সংগ্রাম করছেন এ নারী। ইতিমধ্যেই রাজনৈতিক অঙ্গনেও তার দৌড়ঝাপ চোখে পড়ার মতো। বিএনপির বিভিন্ন রাজনৈতিক কর্মসূচীতেও তিনি নিয়মিতই অংশগ্রহণ করছেন।

বিএনপি থেকে নির্বাচন করলেও দলমত নির্বিশেষে তার দিকেই জনসমর্থন থাকবে বলে মনে করছেন ডেইজি। কারণ হিসেবে মনে করা হচ্ছে পরিবারের একমাত্র উপার্জনশীল ব্যক্তি তার স্বামী শামসুল আলম বাবলু সন্ত্রাসীদের গুলিতে নিহত হওয়ার পর থেকেই ছেলে মেয়ে তিনি মানবেতর জীবন যাপন করছেন। আর এই অনুভুতিতেই সাধারণ মানুষ তার পাশে দাঁড়াবে অনেকটাই নিশ্চিত করে বলা যায়। যদিও এখনো পর্যন্ত কোন দল থেকেই প্রার্থী ঘোষণা করা হয়নি। তবে মহিলা কাউন্সিলর হওয়ার দৌড়ে ফারজানা ইয়াসমিন ডেইজি যে অনেকটা এগিয়ে রয়েছেন সেটা অনুমান করাই যায়।

উল্লেখ্য, জমিজমা নিয়ে পূর্ব শত্রুতার জেরে ২০১২ সালের ২৩শে আগষ্ট দিনগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে রাজবাড়ী শহরের বিনোদপুর পুলিশ ফাঁড়ির সন্নিকটে(অনুমান ২শ গজের মধ্যে) বিটিভি’র সাংবাদিক সানাউল্লাহ’র বাড়ীর সামনে রাস্তার উপর সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা বিএনপি নেতা এস.এম সামসুল আলম বাবলুকে ঘেরাও করে খুব কাছে থেকে এলোপাতারীভাবে গুলি করে হত্যা করে। এ সময় তিনি গুড়ি গুড়ি বৃষ্টির মধ্যে পায়ে হেঁটে শহরের আজাদী ময়দান থেকে পালাগান শুনে বিনোদপুর এতিমখানা সংলগ্ন নিজ বাড়ীতে ফিরছিলেন। এ হত্যার ঘটনায় নিহত বাবলুর ভাই শহিদুল ইসলাম বাদী হয়ে রাজবাড়ী থানার মামলা নং-৩০, তাং-২৫/৮/২০১২, ধারাঃ ৩৪১/৩০২/৩৪ দঃ বিঃ দায়ের করে। এ হত্যা মামলায় রাজবাড়ী সদর থানার পুলিশ প্রধান আসামী পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মীর এনাম আলী বাচ্চুসহ ১৩জনের বিরুদ্ধে গত ১০ই নভেম্বর-২০১৪ রাজবাড়ীর ১নং আমলী আদালতে চার্জশীট দাখিল করে। সম্প্রতি এ মামলার প্রধান আসামী কাউন্সিলর মীর এনাম আলী বাচ্চু উচ্চ আদালত থেকে জামিনে মুক্তি পেয়েছে।

 


এই নিউজটি 1365 বার পড়া হয়েছে

Comments

comments

More News from রাজনীতি