কি তার পরিচয় ?

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ২:০০ অপরাহ্ণ ,২১ জানুয়ারি, ২০১৬ | আপডেট: ২:০৪ অপরাহ্ণ ,২১ জানুয়ারি, ২০১৬
পিকচার

শিহাবুর রহমান॥ কে এই কিশোরী ? কোথায় তার বাড়ী ? কি তার পরিচয় ? উদ্ধারের ৩৮দিনেও এ প্রশ্নের জবাব মেলেনি। অবশ্য এর বড় কারণ হচ্ছে সে শ্রবণ শক্তিহীন ও বাকপ্রতিবন্ধী।

গত ১৩ ডিসেম্বর রাজবাড়ী জেলার বালিয়াকান্দি উপজেলার নারুয়া বাজার থেকে ১৬/১৭বছরের বাকপ্রতিবন্ধী কিশোরীটিকে উদ্ধার করেন বাবর আলী নামের এক পান দোকানদার। বর্তমানে এই কিশোরী ফরিদপুরের টেপাখোলায় সেফ হোমে রয়েছে।

রাজবাড়ী পুলিশ কোর্টের নন জিআরও এসআই নুরুল ইসলাম জানান, গত ১৩ডিসেম্বর সকাল সাড়ে ৯টার দিকে বালিয়াকান্দি উপজেলার নারুয়া বাজার গালর্স স্কুলের সামনে ১৬/১৭ বছরের শ্রবণ শক্তিহীন ও বাকপ্রতিবন্ধী ওই কিশোরীকে এলোমেলোভাবে ঘোরাফেরা করতে দেখে পান দোকানদার বাবর আলী তাকে তার হেফাজতে নেয়। এরপর সে কিশোরীটির বাবা-মাকে খোঁজার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়। এরপর পান দোকানদার বাবর আলী বালিয়াকান্দি উপজেলা সমাজসেবা অফিসকে অবহিত করে গত ২৪ডিসেম্বর কিশোরীটিকে রাজবাড়ী জেলা সমাজসেবা অধিদপ্তরে নিয়ে আসে।

রাজবাড়ী সমাজসেবা অধিদপ্তরের প্রবেশন অফিসার মনির হোসেন জানান, বাবর আলী নামের এক পান দোকানদার গত ২৪ডিসেম্বর বাক প্রতিবন্ধী ওই কিশোরীকে আমাদের অফিসে নিয়ে আসে। এরপর আমি ওই দিনই কিশোরীটিকে আদালতে প্রেরণ করি। আদালতের বিচারক আবু হাসান খায়রুল্লাহ কিশোরীটিকে ফরিদপুর টেপাখোলা সেফহোমে রাখার নির্দেশ দেন। এরপর থেকে কিশোরীটি টেপাখোলার সেফহোমে রয়েছে। এখনো তার কোন পরিচয় জানা যায়নি।

 


এই নিউজটি 660 বার পড়া হয়েছে

Comments

comments