আসামি গ্র্রেফতার নিয়ে সংঘর্ষে পুলিশসহ আহত ৭

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ৪:৪৯ অপরাহ্ণ ,১৮ এপ্রিল, ২০১৪ | আপডেট: ৪:৫৮ অপরাহ্ণ ,১৮ এপ্রিল, ২০১৪
পিকচার

ডেস্ক রিপোর্টঃ পাবনা জেলার ঈশ্বরদীতে একটি হত্যা মামলার আসামি গ্রেফতার নিয়ে ত্রিমুখী সংঘর্ষ এর ঘটনা ঘটেছে। এতে পুলিশসহ কমপক্ষে ৭ জন আহত হয়েছেন।

শুক্রবার সকাল ১১টার দিকে ঈশ্বরদী উপজেলার দাশুড়িয়া ইউনিয়নের জোতগাজী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

এলাকাবাসী সুত্রে জানা যায়, এক বছর আগে ব্যবসায়ী মজিবর রহমান হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় দায়ের করা মামলার প্রধান আসামি জোতগাজী গ্রামের আকাত মালিথাকে গ্রেফতার করতে মামলার বাদী ও তাদের আত্মীয়-স্বজনদের সঙ্গে পুলিশ সাদা পোশাকে অভিযান চালায়।

এসময় মামলার বাদী আনসারুল ও তার সঙ্গীরা আকাতকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে জখম করে। এক পর্যায়ে গ্রেফতারকৃত আসামি আকাত মাটিতে লুটিয়ে পড়লে বিক্ষুব্ধ গ্রামবাসী একত্রিত হয়ে পুলিশ ও বাদী পক্ষের লোকজনের ওপর হামলা চালায়। এ সময়ের মধ্যেই আকাত পালিয়ে যায়।

2020140207122400

এদিকে এ ঘটনায় ঈশ্বরদী থানার উপপরিদর্শক (এসআই) সাহাজ উদ্দিন, কনস্টেবল মিজান, বাদী আনসারুল, জুয়েল, সজিব, আকাত, পলাশসহ ৭ জন আহত হন।

খবর পেয়ে ঈশ্বরদী থানা থেকে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

আসামি পালিয়ে যাওয়ার কথা অস্বীকার করে ঈশ্বরদী থানার উপপরিদর্শক (এসআই)সাহাজ উদ্দিন জানান, আসামি ও বাদী পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। সংঘর্ষ ঠেকাতে গিয়ে তিনি সামান্য আহত হন।

ঈশ্বরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বিমান কুমার দাশ এ বিষয়ে জানান, একটি হত্যা মামলার বাদী ও আসামি পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা শুনে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করেছে।আসামি পালানোর ঘটনা ঠিক নয়।


এই নিউজটি 1429 বার পড়া হয়েছে

Comments

comments