,

পাংশায় কিশোরী ধর্ষণের অভিযোগ

News

স্টাফ রিপোর্টার : রাজবাড়ীর পাংশায় ১৩ বছর বয়সী এক কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে।

এ অভিযোগে সোমবার (২৬ ডিসেম্বর) ওই কিশোরী নিজেই বাদী হয়ে আবুল কালাম (৪০) নামে একজনকে আসামি করে পাংশা থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে।

অভিযুক্ত কালাম পাংশা উপজেলার কলিমহর ইউনিয়নের মুরাদপুর গ্রামের মৃত আলী মিয়ার ছেলে।

ওই কিশোরী জানায়, তার বাড়ি কুষ্টিয়া জেলা শহরের থানা পাড়া এলাকায়। সে ঝিনাইদহ থানার এএসআই রুমিয়া খাতুনের বাসায় গৃহপরিচারিকার কাজ করতো। গত ১৮ ডিসেম্বর সকাল ১০টার দিকে সে বাসার কাউকে কিছু না বলে কুষ্টিয়ায় বাবা-মার সাথে দেখা করতে আসে। তবে তাদেরকে বাসায় না পেয়ে সে ওই দিন বেলা ২টার দিকে কুষ্টিয়া কোর্ট রেলস্টেশনে আসে। এ সময় কালাম তাকে আদর করে ফুসলিয়ে কুষ্টিয়া শহরের একটি বাসায় নিয়ে যায়। পরদিন সকাল ৮টায় ওই বাসা থেকে বাস যোগে কালাম তাকে পাংশায় নিয়ে আসে। এরপর কালাম তাকে পাংশা রেলস্টেশনে বসিয়ে রাখে। পরে সন্ধ্যা ৬টার দিকে কালাম তাকে কালামের বাড়ির পিছনে বাগানের মধ্যে নিয়ে ধর্ষণ করে। ধর্ষণের পর কালাম তাকে বিষয়টি কাউকে না বলার জন্য জীবননাশের হুমকি দেয়।

এ বিষয়ে পাংশা থানার অফিসার ইনচার্জ এসএম শাহজালাল বলেন, ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত কালাম পলাতক রয়েছে। তবে তাকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

Comments

comments

     এ জাতীয় আরো খবর