কালুখালীর ‘নূর নেছা কলেজে’ জাতীয় শোক দিবস পালিত

শিহাবুর রহমান|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ৬:১০ অপরাহ্ণ ,১৬ আগস্ট, ২০১৭ | আপডেট: ৬:১১ অপরাহ্ণ ,১৬ আগস্ট, ২০১৭
পিকচার

কালুখালী : কবিতা আবৃত্তি, বক্তৃতা, রচনা প্রতিযোগিতা, আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলের মধ্য দিয়ে রাজবাড়ী জেলার কালুখালী উপজেলার মদাপুর ইউনিয়নের কাঁটাবাড়ীয়ায় সদ্য প্রতিষ্ঠিত নূর নেছা কলেজে ১৫ই আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান-এর ৪২তম শাহাদাত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস পালিত হয়েছে।

আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বঙ্গবন্ধুর জীবনীর ওপর গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্য রাখেন কলেজটির সভাপতি ও প্রতিষ্ঠাতা এবং বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশন ইউএসএ’র জেনারেল সেক্রেটারী মোহাম্মদ আব্দুস সালাম।

অন্যানের মধ্যে কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ বিকাশ চন্দ্র বসু, শিক্ষক মোঃ ফারুক সরকার, ইনজামামুল হক নয়ন, মোঃ রিপন হোসেন, রোমানা আক্তার, অর্পণা আক্তার, শামীম প্রমুখ বক্তব্য দেন।

আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে মোহাম্মদ আব্দুস সালাম বলেন, এই দিনে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানসহ তার পরিবারের সদস্যদেরকে ঘাতক মোস্তাক আহাম্মেদের নির্দেশে কিছু বিপথগামী সামরিক বাহিনীর লোকজন নির্মমভাবে হত্যা করে। শুধু তার ুই মেয়ে শেখ হাসিনা ও শেখ রেহেনা দেশের বাইরে থাকার কারণে তারা জীবন রক্ষা পান। দীর্ঘ নি পরে হলেও শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধুর খুনীদের বিচারের মাধ্যমে ফাঁসিতে ঝুলানো হয়েছে।

তিনি কলেজের শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে বলেন, এই কলেজ থেকে প্রতিবছর একজন করে সেরা ছাত্র/ছাত্রী বাছাই করা হবে। সেটা ধনী বা রিদ্র বলে কোন কথা নেই। যে কলেজের মধ্যে সবচেয়ে বেশী নম্বর পাবে তাকে আমরা পুরস্কৃত করবো। তার ইচ্ছা অনুযায়ী সে বাংলাদেশের যে বিশ^বিদ্যালয়ে অধ্যায়ন করতে চায় এবং সেখানে যি সে তার যোগ্যতায় চান্স পায় তাহলে তার পড়াশুনার খরচ আমরা বহন করার চেষ্টা করবো। শুধু তাই নয় সে যদি তার যোগ্যতায় বিদেশে গিয়ে পড়াশুনার সুযোগ পায় ও যেতে পারে তাহলেও তার পড়াশুনার খরচও আমরা বহন করার চেষ্টা করবো।

আলোচনা সভা শেষে ছাত্র/ছাত্রীদের মধ্যে রচনা প্রতিযোগিতা, কবিতা আবৃত্তি ও বক্তৃতা প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মধ্যে ‘কবিতায় বঙ্গবন্ধু, ৭ই মার্চ বঙ্গবন্ধুর অসামান্য্য ভাষণ ও খ্যাতিমানদের চোখে বঙ্গবন্ধু’ শিরোনামে বই উপহার দেয়া হয়।

পরে দোয়া মাহফিলে বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের সকল শহীদদের মাগফেরাত কামনা করে দোয়া করা হয়।

Comments

comments


এই নিউজটি 368 বার পড়া হয়েছে
[fbcomments"]