,

রাজবাড়ীতে ইত্তেফাকের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদকের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা

News

স্টাফ রিপোর্টার : মিথ্যা ও ভিত্তিহীন সংবাদ প্রকাশের অভিযোগে দায়েরকৃত মানহানি মামলায় দৈনিক ইত্তেফাক পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক তাসমিমা হোসেনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছেন আদালত।

মঙ্গলবার (০৫ ডিসেম্বর) রাজবাড়ীর ১নং আমলী আদালতের বিচারক ফরহাদ মামুন এ আদেশ দেন।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, চলতি বছরের ২২মার্চ দৈনিক ইত্তেফাক পত্রিকায় ‘অনেক মন্ত্রী-এমপির স্বজনেরা বেপরোয়া ঃ চলছে দখল, টেন্ডারবাজি, সংখ্যালঘু নির্যাতন, সরকারের উন্নয়ন ম্লান হচ্ছে, মনোনয়ন ঝুঁকিতে ৭০ এমপি’ শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশ করা হয়। ওই সংবাদের আংশিক বিষয়ের প্রেক্ষিতে পত্রিকার রিপোর্টার মেহেদী হাসান ও ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক তাসমিমা হোসেনের বিরুদ্ধে ২৩মার্চ রাজবাড়ীর জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ১নং আমলী আদালতে দণ্ড বিধির ৫০০/৫০১ ধারায় অর্ধকোটি টাকার মানহানি মামলা দায়ের করেন রাজবাড়ী জেলা পরিষদের সদস্য এবং কালুখালী উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মো. মিজানুর রহমান মজনু।

মামলায় ২২ মার্চ দৈনিক ইত্তেফাকে প্রকাশিত ওই সংবাদটির একাংশে ‘রাজবাড়ী-২ আসনের সংসদ সদস্য মো. জিল্লুল হাকিমের নাম ব্যবহার করে সংসদ সদস্যের স্ত্রী ও মিজানুর রহমান মজনু সম্পর্কে যে তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যা, ভিত্তিহীন, কাল্পনিক ও উদ্দেশ্য প্রণোদিত মর্মে অভিযোগ করা হয়।

বিজ্ঞ আদালত মামলাটি একজন সহকারী পুলিশ সুপারকে দিয়ে তদন্ত করে আদালতে প্রতিবেদন দাখিলের জন্য রাজবাড়ীর পুলিশ সুপার সালমা বেগমকে আদেশ দেন। আদালতের আদেশে সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মো. ফজলুল করিম মামলার সামগ্রিক বিষয়গুলো পর্যালোচনা ও প্রাপ্ত সাক্ষ্য প্রমাণের বিবেচনায় তদন্ত শেষে ৩১মে আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন।

তদন্ত প্রতিবেদনে পুলিশের এই কর্মকর্তা ‘দৈনিক ইত্তেফাকে রাজবাড়ী-২ আসনের সংসদ সদস্য মো. জিল্লুল হাকিম ও তার লোকজনের বিরুদ্ধে যে সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে তা সত্য নয় এবং মো. মিজানুর রহমান মজনুর দায়েরকৃত দণ্ড বিধির ৫০০/৫০১ ধারার অভিযোগটি প্রাথমিকভাবে সত্য বলে প্রতীয়মান হয়েছে’ বলে উল্লেখ করেন।

আদালত ওই তদন্ত প্রতিবেদন আমলে নিয়ে মামলার দুই আসামি ইত্তেফাক পত্রিকার রিপোর্টার মেহেদী হাসান ও ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক তাসমিমা হোসেনকে আদালতে হাজির হতে সমন জারির আদেশ দেন।

মঙ্গলবার মেহেদী হাসান আদালতে হাজির হয়ে জামিন প্রার্থনা করলে আদালত তার জামিন মঞ্জুর করেন। এছাড়া অপর আসামি তাসমিমা হোসেন আদালতে হাজির না হওয়ায় তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়না জারি করা হয়।

রাজবাড়ী নিউজ২৪.কম/ আশিক

Comments

comments

     এ জাতীয় আরো খবর