,

রাজবাড়ীতে মাদককে ‘না’ বললো ২ হাজার শিক্ষার্থী

News

রাজবাড়ী সদর : রাজবাড়ীতে মাদকবিরোধী শপথ বাক্য পাঠের মধ্যে দিয়ে মাদকদ্রব্য থেকে বিরত থাকার অঙ্গীকার করেছে জেলা শহরের ছয়টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রায় দুই হাজার শিক্ষার্থী।

বুধবার (২৪ জানুয়ারি) দুপুরে রাজবাড়ী সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে জেলা প্রশাসন ও মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর আয়োজিত মাদকবিরোধী সমাবেশে এ শপথ করে তারা।

জেলা প্রশাসক মো. শওকত আলীর সভাপতিত্বে সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন- মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক সঞ্জয় কুমার চৌধুরী।

বিশেষ অতিথি হিসেবে- রাজবাড়ী জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা ফকীর আব্দুল জব্বার, জেলা সিভিল সার্জান মো. রহিম বকস, মাদকদ্যব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের ঢাকা বিভাগীয় কার্যালয়ের অতিরিক্ত পরিচালক মো. ফজলুর রহমান, রাজবাড়ীর সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মো. আছাদুজ্জামান, রাজবাড়ী সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট এম.এ খালেক, সদর উপজেলা নির্বার্হা কর্মকর্তা (ইউএনও) সৈয়দা নুরমহল আশরাফী, রাজবাড়ী পৌরসভার মেয়র মহম্মদ আলী চৌধুরী ও জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা সৈয়দ সিদ্দিকুর রহমান বক্তব্য দেন।

জেলা শিল্পকলা একাডেমীর কালচারাল অফিসার পার্থ প্রতিম দাসের সঞ্চালনায় সমাবেশে স্বাগত বক্তব্য দেন- জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক রাজীব মিনা।

মাদকবিরোধী সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক সঞ্জয় কুমার চৌধুরী।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক সঞ্জয় কুমার চৌধুরী বলেন, আমাদের বর্তমান মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনটি হচ্ছে ২৭ বছর আগের ১৯৯০ সনের। ওইসময় ইয়াবা ছিলো না। এ কারণে ওই আইনে ইয়াবার কথা লিখা নেই। এজন্য কারো কাছে ইয়াবা পাওয়া গেলে তারা জামিন পেয়ে যায়। আমরা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন সংশোধনের জন্য গত দুই মাস ধরে দিনরাত পরিশ্রম করে চলেছি। এ বছরের মধ্যেই বিষয়টি সংসদ সদস্যদের মাধ্যমে সংসদে উত্থাপন করে একটি যুগোপযগী মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন তৈরি করা হবে। যেখানে মাদকের সর্বোচ্চ শাস্তি থাকবে মৃত্যুদ-।

তিনি বলেন, নতুন আইন তৈরির জন্য আমরা প্রথমেই গুরুত্ব দিয়েছি ইয়াবার দিকে। কারো কাছে যদি এক পিস ইয়াবাও পাওয়া যায় তার দশ বছরের জেল হবে। কারোর কাছে যদি মদ পাওয়া যায় সেটি পুলিশ বা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণের সদ্যদের প্রমাণ করতে হবে না, যার কাছে পাওয়া যাবে তার নিজেকেই নিজের নির্দোষ প্রমাণ করতে হবে।

Comments

comments

     এ জাতীয় আরো খবর