,

সর্বশেষ :
রাজবাড়ীতে ৭০ হাজার ডলারসহ দুই জন আটক রাজবাড়ী সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের কাউন্সিলে সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী মীর্জা বাবু বসন্তপুরে ইউনিয়ন পরিষদের কার্যক্রমে স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতার লক্ষ্যে ওয়ার্ড সভা চার বছর পর ছেলেকে ফিরে পেলেন নিজাম, ধন্যবাদ দিলেন পুলিশকে অটিস্টিক শিশু জিহাদ ফিরে পেল পরিবার আকবর আলী মর্জি উচ্চ বিদ্যালয় এমপিওভুক্ত হওয়ায় শিক্ষক শিক্ষার্থীদের মধ্যে আনন্দের জোয়ার রাজবাড়ীতে ফেনসিডিলসহ মাদক ব্যবসায়ী আটক বালিয়াকান্দিতে বড় ভাইয়ের ব্যাটের আঘাতে ছোট ভাইয়ের মৃত্যু মীর মশাররফ হোসেনের ১৭২তম জন্মবার্ষিকী পালিত রাজবাড়ীর কালুখালীতে প্রতিবন্ধী রাখালকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ

রাজবাড়ীর খানখানাপুরে কলাবাগান ও মেহগনি গাছ কেটে ধ্বংস, প্রাণনাশের হুমকি!

News

রাজবাড়ী : রাজবাড়ী সদর উপজেলার খানখানাপুর ইউনিয়নের ডিগ্রিরচর চাঁদপুর গ্রামের আ. মজিদ শেখের জমিতে প্রবেশ করে ধারালো অস্ত্র দিয়ে প্রায় এক হাজার কলাগাছ ও ৩০টি মেহগনি গাছ কেটে ধ্বংস করেছে প্রতিপক্ষের লোকজন। শুধু তাই নয়, মজিদ শেখের ছেলেরা গাছ কাটতে বাঁধা দিতে গেলে তাদের মারধর করাসহ মেরে ফেলার হুমকি দেওয়া হয়েছে।

গত ২রা ফেব্রুয়ারি সকালে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় গত ৭ই ফেব্রুয়ারি ১৮জনের বিরুদ্ধে রাজবাড়ী থানায় মামলা করেছেন আ. মজিদ শেখের ছেলে মিজানুর রহমান। রাজবাড়ী থানার মামলা নং-১০। ধারাঃ ১৪৩/৪৪৭/৪২৭/৩২৩/৩৭৯/৫০৬/১১৪ পেনাল কোর্ড।

মামলার আসামিরা হলো :- ডিগ্রির চর চাঁদপুর গ্রামের শাহিন শেখ, ইসলাম শেখ, আরিফ শেখ, জাহাঙ্গীর শেখ, সোহেল শেখ, আলতাফ শেখ, হাশেম শেখ, রজব আলী, খালেক, শরীফ শেখ, মোসলেম শেখ, ফজলু ফকির, রাসেল মোল্লা, গালিব, পারভেজ মোল্লা, চর ধোপাখালী গ্রামের রজব আলী, আ. খালেক ও গোয়ালন্দ উপজেলার দক্ষিণ উজানচর গ্রামের আনোয়ার।

মিজানুর রহমান বলেন, ‘প্রতিবেশী ছাবু শেখ ও তার ছেলেদের সঙ্গে জমিজমা সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে আমাদের বিরোধ চলে আসছিল। এ বিরোধের জের ধরে গত ২রা ফেব্রুয়ারি সকালে ছাবু শেখের ছেলে শাহিন শেখের নেতৃত্বে উল্লেখিতরা আমাদের কলাবাগানে প্রবেশ করে ধারালো অস্ত্র দিয়ে প্রায় এক হাজার কলাগাছ ও ৩০টি মেহগনি গাছ কেটে ফেলে প্রায় তিন লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি করে। এ সময় আমরা পাঁচ ভাই বাঁধা দিতে গেলে তারা আমাদের মারধর করাসহ প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দেয়। উল্লেখিতরা দীর্ঘক্ষণ ধরে এ তান্ডবলীলা চালালেও তাদের ভয়ে এলাকার কেউ এগিয়ে আসার সাহস পায়নি।’

মিজানুর রহমান আরো বলেন, ‘শাহিন শেখদের ভয়ে আমরা পরিবার-পরিজন নিয়ে বাড়িতে থাকতে পারছিনা। তাদের ভাড়া করা সন্ত্রাসীরা আমাদের প্রতিনয়ত হুমকি-ধামকি দিচ্ছে। আমার এক ভাই প্রবাসে থাকেন; সন্ত্রাসীদের ভয়ে তিনিও দেশে ফিরতে পারছেন না। প্রশাসনের কাছে আমরা এর সুষ্ঠু বিচার প্রত্যাশা করছি।’

নিউজের ভিডিও-

Comments

comments

     এ জাতীয় আরো খবর