নির্বাচন দিতে সরকারকে বাধ্য করা হবে : বেগম খালেদা জিয়া

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ৮:৩৪ অপরাহ্ণ ,১২ জুলাই, ২০১৪ | আপডেট: ৮:৩৪ অপরাহ্ণ ,১২ জুলাই, ২০১৪
পিকচার

ঢাকা : ঈদের পর আন্দোলনের মাধ্যমে নির্দলীয় নির্বাচন দিতে সরকারকে বাধ্য করা হবে বলে মন্তব্য করেছেন ২০ দলীয় জোট নেতা ও বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া।

বলেছেন, ঈদের পর আমরা আন্দোলনে নামবো। গত ৫ই জানুয়ারির নির্বাচনে আমাদের ডাকে সারা দিয়ে জনগণ ভোট দিতে যায়নি। তারা এই সরকারকে চায় না। তাই তাদের প্রতি সম্মান জানাতেই নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে আন্দোলনের মাধ্যমে সরকারকে বাধ্য করবো।

গতকাল রাজধানীর হোটেল পূর্বাণীতে ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক পার্টি- এনডিপি আয়োজিত ইফতার মাহফিলে অংশ নিয়ে তিনি এসব কথা বলেন। খালেদা জিয়া বলেন, দেশের খুব খারাপ অবস্থা। মানুষ বিপদে আছে। প্রতিদিনই খুন-গুম হচ্ছে। মানুষ বাঁচার জন্য নিরাপদ আশ্রয় খুঁজছে। এখন আমাদের সবার দায়িত্ব হবে- মানুষকে বিপদ থেকে রক্ষা করা, সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে খুন-গুম ও অন্যায়ের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তোলা। ইফতারের আগে দেশ ও জাতির কল্যাণ কামনায় মোনাজাত হয়। মোনাজাত পরিচালনা করেন বাংলাদেশ খেলাফত মজলিশের আমীর অধ্যক্ষ মাওলানা মুহাম্মদ ইসহাক।

এনডিপির সভাপতি খন্দকার গোলাম মোর্তুজার সভাপতিত্বে ইফতার মাহফিলে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসরাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. আরএ গণি, মির্জা আব্বাস, কল্যাণ পার্টির সভাপতি মে. জে. (অব.) সৈয়দ মুহাম্মদ ইবরাহিম বীরপ্রতীক, জাগপা সভাপতি শফিউল আলম প্রধান, জামায়াতের কর্মপরিষদ সদস্য আবদুল হালিম, ড. রিদওয়ানউল্লাহ শাহেদী, এনপিপি চেয়ারম্যান শেখ শওকত হোসেন নীলু, বাংলাদেশ ন্যাপের চেয়ারম্যান জেবেল রহমান গাণি, জাতীয় পার্টির মহাসচিব মোস্তফা জামাল হায়দার, বিএনপির অর্থবিষয়ক সম্পাদক আবদুস সালাম, ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক মাসুদ আহমেদ তালুকদার, গণশিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক এড. সানাউল্লাহ মিয়া, এলডিপির মহাসচিব ড. রেদওয়ান আহমেদ, সাঈদীপুত্র শামীম বিন সাঈদীসহ শরিক দলের নেতারা অংশ নেন।

এদিকে আজ রাজধানীর হোটেল ওয়েস্টিনে জাতীয় পার্টি (জাফর) আয়োজিত ইফতার মাহফিলে যোগ দেবেন খালেদা জিয়া।

 

আপডেট : রবিবার ১৩ জুলাই,২০১৪/ ০২:৩০ এএম/ আশিক


এই নিউজটি 1216 বার পড়া হয়েছে

Comments

comments

More News from রাজনীতি