,

সর্বশেষ :
রাজবাড়ী জেলা জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক কমিটি অনুমোদন রাজবাড়ীর ২ টি আসনের জন্য বিএনপির মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছেন খালেক-আসলাম-হারুন সুষ্ঠু নির্বাচন হলে রাজবাড়ী-১ আসন পুনরুদ্ধার করতে সক্ষম হবো : অ্যাড. খালেক রাজবাড়ী-১ আসনে বিএনপির সম্ভাব্য প্রার্থী অ্যাড. আসলাম মিয়ার গণসংযোগ রাজবাড়ী-১ আসনের জন্য আ’লীগের মনোনয়ন ফরম নিলেন ইমদাদুল হক বিশ্বাস রাজবাড়ীতে যুবলীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন রাজবাড়ীতে এসএসসি পরীক্ষার্থীকে কুপিয়ে জখম রাজবাড়ী-১ আসনের জন্য আ’লীগের মনোনয়ন ফরম নিলেন আশরাফুল ইসলাম রাজবাড়ী-১ আসনের জন্য জাতীয় পার্টির মনোনয়ন ফরম নিলেন মিল্টন প্রত্যেকটি মানুষের ঘরে শান্তি পৌঁছে দেওয়া হবে : রাজবাড়ীর পুলিশ সুপার

আজ ঈদ : বাংলার ঘরে ঘরে আনন্দের বন্যা

News

রাজবাড়ী নিউজ ডেস্ক : পবিত্র মাহে রমজানে দীর্ঘ এক মাস সিয়াম সাধনার পর পবিত্র শাওয়াল মাসের চাঁদ দেখা গেছে। আজ মঙ্গলবার পবিত্র ঈদুল ফিতর উদযাপিত হবে। ফলে বাংলার ঘরে ঘরে বলে চলেছে আনন্দের বন্যা। ব্যাপক আনন্দ উৎসবের আমেজে দেশজুড়ে ইতোমধ্যে ঈদ উৎসবের সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। পবিত্র রমজান শেষে সোমবার ঈদের চাঁদ দেখা যাওয়ায় আজ পহেলা শাওয়াল যথাযথ ধর্মীয় ভাবগম্ভীর পরিবেশে ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্যদিয়ে সারাদেশে পবিত্র ঈদুল ফিতর উদযাপন করা হবে বলে জানিয়েছেন জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটির সভাপতি ও ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রী অধ্যক্ষ মতিউর রহমান।

জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে ইসলামিক ফাউন্ডেশনের কার্যালয়ে জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটির বৈঠকে সভাপত্বি করেন ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রী। বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন, ধর্মসচিব চৌধুরী মো: বাবুল হাসান, প্রধান তথ্য কর্মকর্তা মো: তছির আহামদ, ইসলামিক ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালক শামীম মোহাম্মদ এবং জাতীয় মসজিদের খতিব মো: সালাউদ্দিন, আবহাওয়া অধিদপ্তরের পরিচালক মো: শাহ আলম প্রমুখ।

সোমবার সন্ধ্যায় চাঁদ দেখা কমিটির বৈঠক শেষে মন্ত্রী শাওয়াল মাসের চাঁদ দেখার খবর সাংবাদিকদের জানানোর পর বিশেষ মুনাজাত করা হয়। ঈদুল ফিতর উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি এডভোকেট আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশবাসীকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়ে আলাদা আলাদা বাণী দিয়েছেন। এছাড়া বিরোধী দলের নেতা বেগম রওশন এরশাদ, বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া, জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদও দেশবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

এদিকে সোমবার থেকে সরকারি ছুটি শুরু হয়েছে। ঈদের দিন সরকারি, আধা সরকারি ও স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠানে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হবে। রাজধানীতে বনানীর ঢাকা গেট থেকে বঙ্গভবন পর্যন্ত প্রধান সড়ক এবং সড়ক দ্বীপ জাতীয় পতাকা এবং বাংলা ও আরবিতে ঈদ মোবারক লেখা ব্যানার ও ফেস্টুন দিয়ে সজ্জিত করা হয়েছে। এছাড়া দেশের সকল মহানগর, জেলা ও উপজেলা শহরের প্রধান সড়ক এবং সড়ক দ্বীপ ও জাতীয় পতাকা এবং ব্যানার ও ফেস্টুনে সজ্জিত করা হয়েছে। ঈদের দিন সন্ধ্যায় দেশের গুরুত্বপূর্ণ সরকারি ভবনে আলোকসজ্জা করা হচ্ছে।

বাংলাদেশ বেতার, বাংলাদেশ টেলিভিশন এবং বেসরকারি স্যাটেলাইট টিভি চ্যানেলগুলো ঈদ উপলক্ষে বিশেষ অনুষ্ঠান সম্প্রচার করছে। বিভিন্ন পত্র-পত্রিকা ও এ উপলক্ষে বিশেষ সংখ্যা প্রকাশ করেছে। এদিন দেশের বিভিন্ন হাসপাতাল, কারাগার, সরকারি শিশু সদন, ছোটমনি নিবাস, সামাজিক প্রতিবন্ধী কেন্দ্র, আশ্রয়কেন্দ্র, ভবঘুরে কল্যাণ কেন্দ্র ও দুস্থ কল্যাণ কেন্দ্রে উন্নতমানের খাবার পরিবেশন করা হবে।

রাজধানীতে ঈদের প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হবে সকাল সাড়ে ৮টায় জাতীয় ঈদগাহ ময়দানে। ঈদের প্রধান জামাতে ইমামতি করবেন বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের খতিব প্রফেসর মাওলানা মোহাম্মদ সালাহ উদ্দিন। ইতোমধ্যে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন জাতীয় ঈদগাহের প্রধান জামায়াতের প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে। বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদে ঈদের ৫টি জামায়াত অনুষ্ঠিত হবে। এরমধ্যে প্রথম জামাত হবে সকাল ৭টায়। এছাড়া সকাল ৮টা, ৯টা, ১০টা ও ১১টায় অপর ৪ জামায়াত অনুষ্ঠিত হবে। ঈদের প্রধান জামাতের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে র্যাব ও পুলিশসহ আইন-শৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা সার্বক্ষণিক নজরদারি বজায় রাখবে।

এছাড়া দেশের সকল নগর মহানগরে ঈদ জামায়াত অনুষ্ঠানে সব ধরণের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হয়েছে। ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনে জাতীয় ঈদগাহসহ প্রতি বছর ৩৬৬টি ঈদ জামায়াতের ব্যবস্থা করা হয়। এর মধ্যে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে ২২৬টি এবং উত্তর সিটি করপোরেশনে ১৪০টি ঈদ জামাত সকাল ৭টা থেকে ১১টার মধ্যে অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়া ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় মসজিদে ২টি এবং বিশ্ববিদ্যালয় খেলার মাঠ এবং জাতীয় সংসদ ভবনের দক্ষিণ প্লাজায় সকাল ৮টায় পৃথক ঈদের জামায়াত অনুষ্ঠিত হবে।

গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের ৫৭টি ওয়ার্ডে ২৪৫টি ঈদের জামায়াত অনুষ্ঠিত হবে। প্রতি বছরের মতো এবারও কিশোরগঞ্জের শোলাকিয়ায় সর্ববৃহৎ ঈদের জামায়াতের সব প্রস্তুতি ইতোমধ্যে সম্পন্ন হয়েছে। ঈদের দিন ঢাকা মহানগরীর বিভিন্ন স্থানে বিনোদনমূলক চলচ্চিত্র প্রদর্শিত হবে। সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের বিনা টিকেটে উত্তর ও দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের সব শিশুপার্কে প্রবেশ, বিনোদন ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের ব্যবস্থা থাকবে।

বিভাগীয়, জেলা ও উপজেলা প্রশাসন এবং স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠানসমূহ জাতীয় ও স্থানীয় কর্মসূচির মধ্যদিয়ে ঈদ উদযাপন করবে। বিদেশে অবস্থিত বাংলাদেশ দূতাবাসসমূহেও যথাযথ মর্যাদায় ঈদুল ফিতর উদযাপিত হবে। অপরদিকে ঈদে মুসল্লীদের নিরাপত্তা ও আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় সারাদেশে বিশেষ নিরাপত্তার ব্যবস্থা করেছে আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

 

 

আপডেট : মঙ্গরবার ২৯ জুলাই,২০১৪/ ০১:২৩ এএম/ আশিক

Comments

comments

     এ জাতীয় আরো খবর