পাংশায় গৃহবধূ অপহরণের নেপথ্য উদঘাটন

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ১০:৪৭ পূর্বাহ্ণ ,১০ আগস্ট, ২০১৪ | আপডেট: ১০:৪৯ পূর্বাহ্ণ ,১০ আগস্ট, ২০১৪
পিকচার

মোক্তার হোসেন : রাজবাড়ীর পাংশা থানা পুলিশ গৃহবধূ কুলছুম আক্তার অপহরণের এক সপ্তাহের মধ্যে ঘটনার নেপথ্য উদঘাটন করেছেন।

জানা যায়, পাংশা পৌরসভার মৃগীডাঙ্গা গ্রামের বাসিন্দা মোঃ আলাউদ্দিন মোল্লার স্ত্রী কুলছুম আক্তার ও তাদের কাওছার (৮) ও তাজমির (৬) নামের দু’টি পুত্র সন্তানকে গত ২ আগস্ট রাত সাড়ে ১২টার দিকে অজ্ঞাত দুর্বৃত্তরা অপহরণ করে। দুর্বৃত্তরা ওই বাড়ি থেকে স্বর্ণালঙ্কার, বিদেশি কম্বল ও দামী কাপড় চোপর লুণ্ঠন করে নিয়ে যায়। এমনই অভিযোগ এনে অপহৃত কুলছুম আক্তারের স্বামী মোঃ আলউদ্দিন মোল্লা বাদি হয়ে অজ্ঞাত আসামী করে গত বুধবার পাংশা থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলা নং ৫। ধারা নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০ (সংশোধনী ২০০৩) এর ৭/৮/৩০ ধারা তৎসহ পেনাল কোর্ড ৪৪৮/৩৮০/৩৪। ঘটনার বিষয়ে পাংশা থানা পুলিশসহ র্যাব প্রশাসন তৎপর হয়। এক পর্যায়ে ঘটনার ৪দিনের মাথায় গত বুধবার রাতে পাবনার র্যাব সদস্যরা অভিযান চালিয়ে পাবনা শহরের দক্ষিণ রাঘবপুর গ্রাম থেকে তাদেরকে উদ্ধার করেন। এরপর পাংশা থানা পুলিশ ঘটনার নেপথ্য উদঘাটনে তৎপর হয়।

এ ব্যাপারে পাংশা থানার ওসি মোহাম্মদ আবুল বাশার মিয়া জানান, গৃহবধূ কুলছুম অপহরণের এক সপ্তােেহর মধ্যে ঘটনার নেপথ্য উদঘাটন করা হয়েছে। তব