রাজবাড়ী-কুষ্টিয়া মহাসড়কের সত্যজিতপুর কলেজ মোড় থেকে ডাকাতি হওয়া ৩৭৬বস্তা মিনিকেট ও চালসহ ট্রাক উদ্ধার : ১জন গ্রেফতার

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ১০:৫৪ পূর্বাহ্ণ ,১২ আগস্ট, ২০১৪ | আপডেট: ১০:৫৪ পূর্বাহ্ণ ,১২ আগস্ট, ২০১৪
পিকচার

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজবাড়ী-কুষ্টিয়া আঞ্চলিক মহাসড়কের পাংশা পৌরসভার সত্যজিতপুর কলেজ মোড় এলাকা থেকে ৩৮৭ বস্তা মিনিকেট চাল ভর্তি ট্রাক ডাকাতির ঘটনায় জামাল মোল্লা(৩৫) নামক এক ছিনতাইকারী গ্রেফতার হয়েছে।

গত ১০ আগস্ট পাংশা থানার এস.আই আবু সায়েমের নেতৃত্বে সঙ্গীয় ফোর্স ও মকসুদপুর থানার পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে। ধৃত জামাল গোপালগঞ্জ জেলার মকসুদপুর থানার পাকদিয়া গ্রামের মৃত আয়নাল মোল্লার ছেলে।

গত ৭ই আগস্ট রাত সাড়ে ১০টার দিকে ফারুকসহ ১০/১৫জন ছিনতাইকারী পাংশা কলেজ মোড় এলাকা থেকে ড্রাইভার ও হেলপারকে মারপিটের পর চেতনানাশক ওষুধ খাওয়ায়ে ৩৮৭বস্তা মিনিকেট চাল ভর্তি ট্রাক ছিনতাই করে।

ছিনতাই হওয়া চাল ভর্তি ট্রাকের ম্যানেজার নাটোর জেলার গুরুদাসপুর থানার চাঁচকৈড় খলিফা পাড়া গ্রামের মজনু সরকার জানান, গত ৭ই আগস্ট সন্ধ্যা ৭টার দিকে চাঁচকৈড় বাজার থেকে তাদের ট্রাকে (ঢাকা-মেট্রো-ট-১৬-৯২৪৯) ৩৮৭বস্তা চাল নিয়ে ড্রাইভার জরিপ সরকার ও হেলপার আলাউদ্দিন ফরিদপুরের উদ্দেশ্যে রওনা হয়। রাত সাড়ে ১০টার দিকে ট্রাকের ড্রাইভার জরিপের সাথে মোবাইলে কথা হলে সে জানায় বর্তমানে তারা রাজবাড়ী জেলার পাংশা থানা এলাকায় আছে। এরপর থেকেই ড্রাইভার ও হেলপারের মোবাইল বন্ধ পাওয়া যায়। ঘটনাটি ট্রাকের মালিককে জানিয়ে বিভিন্ন স্থানে খোঁজ নেয়া হয়। পরদিন ৮ই আগস্ট একটি বিশ্বস্ত সূত্রে জানায়, গোপালগঞ্জ জেলার মকসুদপুর থানার বনগ্রাম বাজারে মিজানুর রহমান মোল্লা ওরফে মিজান নামের এক ব্যক্তির গোডাউনে ছিনতাই হওয়া ট্রাকের চাল আনলোড হয়েছে এবং ট্রাকের ড্রাইভার ও হেলপার রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে ভর্তি আছে।

খবর পেয়ে তিনি রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে এসে ড্রাইভার ও হেলপারকে দেখতে পান। এ সময় ড্রাইভার জরিপ তাকে জানায় ওই দিন(৭ই আগস্ট) রাত সাড়ে ১০টার দিকে চাল ভর্তি ট্রাকটি চালিয়ে পাংশা থানার সত্যজিতপুর কলেজ মোড় এলাকায় এলে একটি ট্রাক তাদের সামনে এসে বামে চাপ দেয়। তিনি ট্রাকটি ধীর গতিতে চালালে ১০/১২জন লোক দুই দিক দিয়ে এসে তাদেরকে মারপিট করে। এ সময় ট্রাকটি বন্ধ হয়ে গেলে তারা চেতনানাশক ওষুধ খাওয়ায়ে তাদেরকে রাস্তার পাশে ফেলে দিয়ে চাল ভর্তি ট্রাকটি ছিনতাই করে নিয়ে চলে যায়।

পাংশা থানার এস.আই আবু সায়েম জানায়, গত ১০ আগস্ট মকসুদপুর থানা পুলিশের সহযোগিতায় গোপালগঞ্জ জেলার মকসুদপুর থানার পাকদিয়া গ্রামের মৃত আয়নাল মোল্লার ছেলে জামাল মোল্লাকে তার বাড়ী থেকে ৩০বস্তা চালসহ গ্রেফতার করা হয়। এছাড়াও তার স্বীকারোক্তিতে একই থানার বনগ্রাম বাজারে মিজানুর রহমান মোল্লা ওরফে মিজানের গোডাউন থেকে ৩৪৬ বস্তা চাল এবং গতকাল ১১ই আগস্ট নড়াইল থানা এলাকা থেকে ছিনতাই হওয়া ট্রাকটি উদ্ধার করা হয়। গ্রেফতারের পর জামাল মোল্লা জানায়, ঘটনার দিন রাতে মিজানুর রহমান মোল্লা ওরফে মিজানসহ বিভিন্ন অঞ্চলের ১০/১২জন মিলে তারা চাল ভর্তি ট্রাকটি পাংশা কলেজ মোড় এলাকা থেকে ছিনতাই করে।

এ ঘটনায় ছিনতাই হওয়া ট্রাকের ম্যানেজার মজনু সরকার বাদী হয়ে গত ১০ই আগস্ট পাংশা থানায় দঃ বি’র ৩৯৫/৩৯৭ ধারায় মামলা নং-৮ দায়ের করে। মামলার আসামীরা হলো ঃ গোপালগঞ্জ জেলার মকসুদপুর থানার পাকদিয়া গ্রামের মৃত হোসেন মোল্লার ছেলে মিজানুর রহমান ওরফে মিজান(৫৫), হালিম মোল্লা ওরফে চুলা হালিমের ছেলে ফারুখ হোসেন(৪৫) ও তার ভাই সেলিম (৪০) এবং জামাল মোল্লাসহ অজ্ঞাত ১০/১২জন। গতকাল ১১ই আগস্ট গ্রেফতারকৃত জামাল মোল্লাকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরন করা হয়েছে।

 

 

আপডেট : মঙ্গলবার ১২ আগষ্ট,২০১৪/ ০৫:৫৪ পিএম/ আশিক


এই নিউজটি 1136 বার পড়া হয়েছে
[fbcomments"]