পদ্মা পাড়ের অবকাশ কেন্দ্র আলোকিত ও সজ্জিতকরণে গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত গ্রহন

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ১১:৫২ অপরাহ্ণ ,২৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৪ | আপডেট: ১১:৫২ অপরাহ্ণ ,২৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৪
পিকচার

স্টাফ রিপোর্টার : :  রাজবাড়ী জেলা শহরের উপকন্ঠে অবস্থিত গোদার বাজার পদ্মা নদীর পাড়ে দর্শনার্থী ও পর্যটকদের জন্য জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে নির্মিত অবকাশ কেন্দ্রের সৌন্দর্য্য বৃদ্ধির জন্য জেলা প্রশাসক মোঃ রফিকুল ইসলাম খান সময়োপযোগী আরো কিছু পদক্ষেপ গ্রহন করেছেন।

গোদার বাজার পদ্মা নদীর পাড় দর্শনার্থী ও পর্যটকদের বিনোদনের কেন্দ্র হিসেবে সজ্জিত করতে এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় সিদ্ধান্ত গ্রহনের জন্য গতকাল ২৭ সেপ্টেম্বর বিকেল সাড়ে ৪টায় পদ্মা পাড়ে সেনাবাহিনীর সৌজন্যে নির্মিত অবকাশ কেন্দ্র বন্ধন চত্বরে জেলা প্রশাসক মোঃ রফিকুল ইসলাম খানের সভাপতিত্বে পদ্মা পাড়ের অবকাশ কেন্দ্র পরিকল্পিতভাবে সজ্জিতকরণ এবং শোভাবর্ধনসহ দর্শনার্থীদের জন্য প্রয়োজনীয় সুযোগ-সুবিধা বর্ধিতকরণের জন্য এক সভা অনুষ্ঠিত হয়।

rajbarinews24

সভায় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক(রাজস্ব) গাজী মোঃ আসাদুজ্জামান কবির, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক(সার্বিক) সোনামনি চাকমা, নেজারত ডেপুটি কালেক্টর মোঃ জামিরুল ইসলাম, রাজবাড়ী বিদ্যুৎ সরবরাহ ওজোপাডিকোর নির্বাহী প্রকৌশলী মোঃ সিরাজুল ইসলাম, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মোঃ সফিকুল ইসলাম সফি, রাজবাড়ী প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক খোন্দকার আব্দুল মতিন, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সদস্য ইঞ্জিনিয়ার মোঃ আমজাদ হোসেন, মোঃ গোলাম মওলা, ঢাকা থেকে আগত বাংলাদেশ সুইমিং ফেডারেশনের ভাইস চেয়ারম্যান মিসেস লায়লা নুর বেগম উপস্থিত ছিলেন। তাছাড়া সভা চলাকালে জেলা প্রশাসক মোঃ রফিকুল ইসলাম খান পৌরসভার মেয়র, জনস্বাস্থ্য বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী ও ভূমির মালিকের সাথে টেলিকনফান্সের মাধ্যমে আলোচনা করেন।
সভায় অবকাশ কেন্দ্র বন্ধন নির্মানের জন্য যশোর সেনানিবাসের জিওসি মেজর জেনারেল এস.এম মতিউর রহমান ও রাজবাড়ীর সাবেক জেলা প্রশাসক মোঃ হাসানুজ্জামাল কল্লোলকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করা হয়।
সভায় পদ্মা পাড়ের অবকাশ কেন্দ্রের সুযোগ-সুবিধা বৃদ্ধির জন্য বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। সিদ্ধান্তের মধ্যে রয়েছে ঃ সন্ধ্যার পর দর্শনার্থীদের নিরাপদ অবস্থান ও চলাচল নিশ্চিত করতে বিদ্যুৎ বিভাগের সহযোগিতায় তিনটি বৈদ্যুতিক পোল স্থাপন করা হবে। স্থাপিত তিনটি পোলে পর্যাপ্ত আলোর ব্যবস্থা এবং দর্শনার্থীদের জরুরী প্রয়োজনে ব্যবহারের জন্য পুরুষ ও মহিলাদের পৃথকভাবে দু’টি টয়লেট নির্মাণ করবে রাজবাড়ী পৌরসভা। সকালে ও বৈকালিক অবসরে ঘুরতে আসা দর্শনার্থীদের জন্য সুপেয় পানীয়জলের ব্যবস্থার জন্য জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর দুইটি টিউবওয়েল স্থাপন করবে। নিরাপত্তার জন্য আপাততঃ সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার সন্ধ্যা ৬টার পর হতে প্রতিদিন ২জন গ্রাম-পুলিশ নিয়োগের ব্যবস্থা গ্রহন করবেন।
এছাড়াও বন্ধন চত্বরে বিভিন্ন সাহিত্য-সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিচালনার জন্য আরেকটি গোলঘর নির্মাণ করা হবে। এ গোলঘর নির্মানের জন্য যশোর সেনানিবাসের জিওসি মেজর জেনারেল এস.এম মতিউর রহমানকে অনুরোধ করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।
উল্লেখ্য, রাজবাড়ীর বর্তমান জেলা প্রশাসক মোঃ রফিকুল ইসলাম খান যোগদানের পর পরই গোদারবাজার পদ্মা পাড়ের অবকাশ কেন্দ্র টেকসই ও আরও দৃষ্টিনন্দন করার জন্য ৩সদস্য বিশিষ্ট একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে।

স্বপ্ন /২৮ শে সেপ্টেম্বর ২০১৪ / রাজবাড়ি নিউজ ২৪.কম


এই নিউজটি 1176 বার পড়া হয়েছে

Comments

comments