কোরবানির মাংস খাওয়ার ২০টি টিপস!

|রাজবাড়ী নিউজ24

প্রকাশিত: ৫:১৯ অপরাহ্ণ ,৬ অক্টোবর, ২০১৪ | আপডেট: ৫:২৩ অপরাহ্ণ ,৬ অক্টোবর, ২০১৪
পিকচার

কোরবানির মাংস খাওয়ার ২০টি টিপস!

১. প্রাপ্তবয়ষ্ক এবং সুস্থ ব্যক্তিরা প্রতিদিন ১০০ গ্রামের বেশি মাংস খাবেন না।

২. যাদের হার্ট অ্যাটাক হয়েছে, হৃৎপিণ্ডের রক্তনালীতে রিং বসানো হয়েছে, রক্তে ক্ষতিকারক কলেস্টেরলের মাত্রা বেশি, হাঁটলে বা জগিং করলে যাদের বুক ব্যথা হয় তারা অবশ্যই দৈনিক ৫০ গ্রামের বেশি মাংস খাবেন না।

৩. মাংসের ঝোল বর্জন করুন। কারণ ঝোলেই সবচেয়ে বেশি চর্বি থাকে।

৪. ইনসুলিন নির্ভরশীল ডায়াবেটিসে আক্রান্তদের কোরবানির ঈদে গ্লুকোমিটার দিয়ে রক্তের গল্গুকোজ চেক করুন।

৫. গরুর মাংসে যাদের অ্যালার্জি আছে তারা আগেই প্রতিরোধ মূলক ব্যবস্থা নিয়ে রাখুন।

৬. এসিডিটি এড়াতে ভাজাপোড়া কম খাবেন এবং কখনও পেটভর্তি করে খাবেন না। এসিডিটি দমনে এটি বেশ কাজে দেবে।

৭. যাদের খুব বেশি এসিডিটি হয় তারা বিভিন্ন গ্যাস্ট্রিক প্রতিরোধক ওষুধ যেমন : এইচ টু বল্গকার, প্রোটন পাম্প ইনহিবিটর, এন্টাসিড ইত্যাদি খেতে পারেন।

৮. বেশি মাংস খেলে কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা বেড়ে যায়। যাদের এনালফিশার বা পাইলস জাতীয় রোগ আছে তাদের পায়ুপথে জ্বালাপোড়া, ব্যথা ইত্যাদি বাড়তে পারে, এমনকি পায়ুপথে রক্তক্ষরণ পর্যন্ত হতে পারে। তাই প্রচুর পরিমাণে পানি, সরবত, ফলের রস, ইসবগুলের ভুসি ও অন্যান্য তরল খাবার বেশি করে খাবেন।

৯. যারা কিডনির সমস্যায় ভোগেন তাদের কোন ক্রমেই অতিরিক্ত গোশত খাওয়া ঠিক হবে না।

১০. রা