,

রাজবাড়ী পৌর নির্বাচনে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী তিতু বিজয়ী

News

চতুর্থ ধাপে ১৪ই ফেব্রুয়ারি অনুষ্ঠিত রাজবাড়ী পৌরসভা নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী ও ৪নং ওয়ার্ডের বর্তমান কাউন্সিলর আলমগীর শেখ তিতু বিপুল ভোটের ব্যবধানে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী ও বর্তমান মেয়র মহম্মদ আলী চৌধুরীকে পরাজিত করে মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন।

স্বাধীনতার পরবর্তী সময়ে রাজবাড়ী পৌরসভায় এবাই প্রথম ইলেকট্রনিক্স ভোটিং মেশিন (ইভিএম)-এর মাধ্যমে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে ইভিএমে নির্বাচন সম্পন্ন করায় ভোটারগণ ও বিজয়ীরা নির্বাচন কমিশন, জেলা প্রশাসন, জেলা পুলিশ, রিটার্নিং অফিসারসহ আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী সংশ্লিষ্ট বাহিনীর সদস্যদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন। 

নারিকেল গাছ প্রতীকে স্বতন্ত্র প্রার্থী মোঃ আলমগীর শেখ তিতু ১৫ হাজার ৯০২ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী ও বর্তমান মেয়র মহম্মদ আলী চৌধুরী ৭হাজার ৩৪৮ ভোট পেয়েছেন। উভয়ের মধ্যে প্রাপ্ত ভোটের ব্যবধান ৮হাজার ৫৫৪টি। 

মেয়র পদে তৃতীয় অবস্থানে থাকা বিএনপির মনোনীত প্রার্থী ও সাবেক মেয়র তোফাজ্জেল হোসেন মিয়া ধানের শীষ প্রতীকে ২ হাজার ৬৮৩ ভোট এবং জাতীয় পার্টির লাঙ্গল প্রতীকের প্রার্থী কে.এ রাজ্জাক মেরীন ৯৫৯ ভোট পেয়েছেন। 

ফলাফল বিশ্লেষনে দেখা যায, পরাজিত ৩জন মেয়র প্রার্থীর প্রাপ্ত সম্মিলিত ভোটের পরিমাণ ১০ হাজার ৯৯০টি। তারা ৩জনে মিলেও আলমগীর শেখ তিতু’র চেয়ে ৪হাজার ৯১৫ ভোট কম পেয়েছেন। 

নির্বাচনে রাজবাড়ী পৌরসভার ৪৫ হাজার ২০ জন ভোটারের মধ্যে ২৬ হাজার ৮৯২ জন ভোট দেন (৫৯.৭৩ শতাংশ)। এর মধ্যে ৮১টি ভোট ত্রুটির কারণে বাতিল হয়। 

অপরদিকে, সাধারণ ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদে ১নং ওয়ার্ডে বর্তমান কাউন্সিলর ও কৃষক লীগ নেতা আঃ রব বিশ্বাস ওরফে রব মহুরী ব্লাকবোর্ড প্রতীকে ৭৯৩ ভোট, ২নং ওয়ার্ডে বিএনপির সমর্থিত আব্দুল্লাহ আল মামুন সম্রাট পাঞ্জাবী প্রতীকে ১হাজার ৩৯৫ ভোট, ৩ নং ওয়ার্ডে বর্তমান কাউন্সিলর সাইফুদ্দিন আহম্মেদ সুজন পাঞ্জাবী প্রতীকে ১ হাজার ৬৭৯ ভোট, ৪ নং ওয়ার্ডে তরুণ সমাজসেবক আবু মোঃ হাসান টেবিল ল্যাম্প প্রতীকে ১হাজার ২৬৮ ভোট, ৫ নং ওয়ার্ডে বর্তমান কাউন্সিলর কাজী মাহতাব উদ্দিন তৌহিদ উট পাখি প্রতীকে ১হাজার ৭২৭ ভোট, ৬ নং ওয়ার্ডে বর্তমান কাউন্সিলর নির্মল কৃষ্ণ চক্রবর্তী শেখর উট পাখি প্রতীকে ১ হাজার ৪৬৪ ভোট, ৭নং ওয়ার্ডে বিএনপির সমর্থিত জহির রাজ ব্রিজ প্রতীকে ৮৯২ ভোট, ৮ নং ওয়ার্ডে মাহবুবুর রহমান পলাশ পানির বোতল প্রতীকে ১ হাজার ৩৮৩ ভোট এবং ৯ নং ওয়ার্ডে তৌহিদুল ইসলাম ব্রিজ প্রতীকে ১হাজার ১১৯ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। 

এছাড়াও সংরক্ষিত মহিলা ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদে সংরক্ষিত ১নং ওয়ার্ডে (১, ২ ও ৩) বর্তমান কাউন্সিলর ফারজানা আলম ডেইজী জবা ফুল প্রতীকে ৪হাজার ৯৯ ভোট, সংরক্ষিত ২নং ওয়ার্ডে(৪, ৫ ও ৬) সাবেক কাউন্সিলর মমতাজ বেগম অটোরিক্সা প্রতীকে ২হাজার ৭৬১ ভোট এবং সংরক্ষিত ৩নং ওয়ার্ডে (৭. ৮ ও ৯) বর্তমান কাউন্সিলর মরিয়ম কাজী আনারস প্রতীকে ৬ হাজার ৪৬৮ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। 

নির্বাচনকে কেন্দ্র করে গত কয়েকদিনে শহরে সরগরমভাব, উত্তেজনা ও ২/৩টি মারামারির ঘটনা ঘটলেও নির্বাচন কমিশন, জেলা প্রশাসন, জেলা পুলিশসহ সংশ্লিষ্ট আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর পক্ষপাতহীন বলিষ্ঠ ভূমিকার কারণে প্রথম বারেরমত ইভিএম মেশিনে অনুষ্ঠিত এবারের রাজবাড়ী পৌরসভা নির্বাচন জেলার নির্বাচনের ইতিহাসে মাইলফলক হয়ে থাকবে।

আজ ১৪ই ফেব্রুয়ারী নির্বাচন চলাকালে জেলা প্রশাসক দিলসাদ বেগম ও পুলিশ সুপার এম এম শাকিলুজ্জামান ভোট কেন্দ্রগুলো পরিদর্শনকালে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।    

রাজবাড়ীর অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক(সার্বিক) সারোয়ার আহমেদ সালেহীন রাজবাড়ী পৌরসভার সাধারণ নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করেন। সহকারী রিটার্নিং অফিসার হিসেবে তাকে সহযোগিতা করেন সদর উপজেলা নির্বাচন অফিসার স্বপন সাহা দায়িত্বে ছিলেন। 

সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত ইভিএমে ভোট গ্রহণ সম্পন্ন হওয়ার পর রিটার্নিং অফিসার ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক(সার্বিক) সারোয়ার আহমেদ সালেহীন জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের কন্ট্রোল রুম থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে ফলাফল ঘোষণা করেন।

এ সময় নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার-সহকারী রিটার্নিং অফিসার এবং প্রশাসন ও আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর কর্মকর্তাগণসহ নির্বাচন সংশ্লিষ্টরা উপস্থিত ছিলেন। 

উল্লেখ্য, বিজয়ী মেয়র মোঃ আলমগীর শেখ তিতু রাজবাড়ী পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন চেয়ে পৌর আওয়ামী লীগের কাছে আবেদন করেছিলেন। গত ৪ঠা ডিসেম্বর জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে মেয়র পদ প্রত্যাশী ১০ জন প্রার্থীর মধ্যে ভোটাভুটি অনুষ্ঠিত হয়। ভোটাভুটি ফলাফল কেন্দ্রীয় কমিটির কাছে পাঠায় জেলা আওয়ামী লীগ। গত ১৩ই জানুয়ারী রাতে আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে তার সরকারী বাসভবন গণভবনে অনুষ্ঠিত স্থানীয় সরকার জনপ্রতিনিধি নির্বাচনী বোর্ডের বৈঠকে রাজবাড়ী পৌরসভায় বর্তমান মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মহম্মদ আলী চৌধুরীকে দলীয় মেয়র প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা করা হয়। 

এদিকে দলীয় মনোনয়ন লাভে ব্যর্থ হয়ে মোঃ আলমগীর শেখ তিতু(পৌর ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি) বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে রাজবাড়ী পৌরসভার মেয়র পদে নারিকেল গাছ প্রতীক নিয়ে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করায় তাকে গত ৪ঠা ফেব্রুয়ারী দল থেকে বহিস্কার করা হয়। 

Comments

comments

     এ জাতীয় আরো খবর